নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জে গণসংবর্ধিত হলেন বিশ্বজয়ী অন্ধ কোরআনে হাফেজ তানভীর হোসাইন


Sokal Pratidin প্রকাশের সময় : ১৩/০২/২০২৩, ৭:৫৭ অপরাহ্ণ /
নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জে গণসংবর্ধিত হলেন বিশ্বজয়ী অন্ধ কোরআনে হাফেজ তানভীর হোসাইন
মোহাম্মদ আবু নাছের, নোয়াখালী।।
সৌদিআরব ও ইরানের পর এবারন মিসরে আন্তর্জাতিক জিফজুল কোরআন প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়ে বিশ্বসেরা নির্বাচিত হওয়ার পর দেশে এসে নিজ উপজেলায় গণসংবর্ধিত হলেন দৃষ্টিহীন হাফেজ তানভীর হোসাইন।
সোমবার (১৩ ফেব্রুয়ারী ) সকাল ১০ টায় হাফেজ তানভীর হোসেন এর নিজ উপজেলা নোয়াখালী কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার বসুরহাট রুপালি চত্তরে মারকাযুত তাকওয়া মাদ্রাসার উদ্যোগে এবং তাওহিদী জনতার পক্ষ থেকে এ সংবর্ধনা প্রদান করা হয়।
মারকাযুত তাকওয়া মাদ্রাসার সভাপতি হাফেজ আবছার উদ্দীনের সভাপতিত্বে এবং মুফতি আমিরুল ইসলামের সঞ্চালনায় এ সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে হাজারো মানুষের ঢল নামে।
এসময় বিশ্বজয়ী হাফেজ তানভীর এলাকায় আগমন উপলক্ষে উৎসুক ধর্মপ্রাণ তাওহিদী জনতা ফেনীর দাগনভূঞয়া উপজেলা থেকে মোটরসাইকেল শোডাউনের মাধ্যমে তাঁকে বরণ করে বসুরহাট নিয়ে আসে। জন্মান্ধ হাফেজ তানভীর নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার চরকাঁকড়া ইউনিয়নের পেশকারহাট ঈদগাহ সংলগ্ন আবদুল মতিন মিয়ার বাড়ির শেখ মোঃ ইলিয়াস এর ছেলে।
গণসংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন,কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও বসুরহাট পৌরসভা মেয়র আবদুল কাদের মির্জা। এতে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট সমাজ সেবক এবং এলিন ফুড কোম্পানীর ডিরেক্টর পিপল চৌধুরী, কোম্পানীগঞ্জ থানা অফিসার ইনচার্জ সাদেকুর রহমান, বসুরহাট পৌরসভা প্যানেল মেয়র ফরহাদ হোসেন, দাগনভূঁইয়া দারুল কোরআন মাদ্রাসার প্রিন্সিপাল মাওঃ আতিক উল্যাহ আল মামুন।
এছাড়াও কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা জামায়াতে ইসলামীর আমীর অধ্যক্ষ বেলায়েত হোসেন, পৌরসভা আমীর মাওলানা মোশাররফ হোসেন, ইসলামি আন্দোলন বাংলাদেশ এর নেতৃবৃন্দ, শাসনতন্ত্র আন্দোলনের নেতৃবৃন্দ সহ বিভিন্ন রাজনৈতিক ও সামাজিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দরা উপস্থিত থেকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান।
এর আগে হাফেজ তানভীর হোসাইন সৌদি আরবের মক্কায় অনুষ্ঠিত কুরআন তেলাওয়াত প্রতিযোগিতায় ৭৩টি দেশের প্রতিযোগীদের হারিয়ে প্রথমস্থান অর্জন করেন। এছাড়াও তিনি ইরানে অনুষ্ঠিত আন্তর্জাতিক হিফজুল কোরআন তেলাওয়াত প্রতিযোগিতায় ২০১৬ সালে ৭৫টি দেশের প্রতিযোগিকে পেছনে ফেলে ৪র্থ স্থান অর্জন, হুফফাজুল কুরআন ফাউন্ডেশন বাংলাদেশ কর্তৃক আয়োজিত কোরআন তেলাওয়াত প্রতিযোগিতায় ২০১২ সালে প্রথম স্থান অর্জন, এনটিভিতে অনুষ্ঠিত পিএইচপি কুরআনের আলো প্রতিযোগিতায় ২০১১ সালে ২য় স্থান অর্জন সহ বিশ্বের বিভিন্ন দেশে কোরআন তেলাওয়াত প্রতিযোগিতায় বিজয়ী হয়েছেন।
১ জানুয়ারী মিসরের কায়রোর গ্র্যান্ড নাইল টাওয়ার হোটেলে শুরু হওয়া সপ্তাহব্যাপী এ প্রতিযোগিতায় ১০৮ জন প্রতিযোগীর মধ্যে (পূর্ণ ৩০ পারা) বাংলাদেশের পক্ষে অংশ গ্রহণ করে তৃতীয় স্থান অর্জন করেন কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার এই কৃতি সন্তান হাফেজ তানভীর হোসাইন।
হাফেজ তানভীর হোসাইন বলেন, কোরআনের কারণে আমি সম্মানিত হয়েছি। কোরআন হেফজের আগে কেউ আমাকে চিনত না, এমনকি আমি নিজেই নিজেকে চিনতে পারিনি, যখন কোরআন হেফজ করলাম তখন থেকে সারা পৃথিবী আমাকে চিনতে শুরু করেছে। আমি পৃথিবীর কাউকে দেখতে না পেলেও পৃথিবীর মানুষ আমাকে দেখছে। আল্লাহর যদি ইচ্ছে হয় আমার দৃষ্টি যদি কখনো ফিরে আসে তার চেয়ে অধিক গুরুত্ব থাকবে আমার কাছে আল কোরআন।
গণসংবর্ধনা অনুষ্ঠানে অতিথিদের বক্তব্য শেষে হাফেজ তানভীর হোসাইন কে ফুল ও ক্রেস্ট দিয়ে বরণ করে নেন তার নিজ কর্মস্থল কোম্পানীগঞ্জ মারকাযুত তাকওয়া মাদ্রাসা ও বিভিন্ন সামাজিক সংগঠন, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এবং বিভিন্ন রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দরা।