নিখোঁজের ৫ দিন পর মিশুক চালকের মরদেহ উদ্ধার 


Munna প্রকাশের সময় : ১২/১২/২০২৩, ১২:২১ পূর্বাহ্ণ /
নিখোঁজের ৫ দিন পর মিশুক চালকের মরদেহ উদ্ধার 
নিজস্ব সংবাদদাতা।। নারায়ণগঞ্জের বন্দরে নিখোঁজের ৫ দিন পর জাকির হোসেন (১৯) নামের এক মিশুক চালকের অর্ধগলিত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।  সোমবার (১১ ডিসেম্বর) দুপুর ২ টার দিকে উপজেলার কলাগাছিয়া ইউনিয়নের মহনপুর কবরস্থান সংলগ্ন একটি জমি থেকে ওই মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়।
নিহত জাকির হোসেন লালমনিরহাটের আদিতমারীর দিগলটারি গ্রামের আলম বাদশা মিয়ার ছেলে। বর্তমানে তারা নারায়ণগঞ্জের বন্দরের ২৩ নং ওয়ার্ডের কদমরসুল কলেজ মাঠপাড়া এলাকার বীর মুক্তিযোদ্ধা শহীদুল্লাহ মিয়ার বাড়িতে ভাড়া থাকতেন। পেশায় সে মিশুক চালক ছিলেন।
এর আগে গত বুধবার (৬ ডিসেম্বর) বিকেল ৫টায় ওই এলাকা থেকেই নিখোঁজ হোন সে। পরে তার পিতা আলম বাদশা মিয়া বাদী হয়ে গত ৭ ডিসেম্বর বন্দর থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী (জিডি নং- ৩৫৬) দায়ের করেন।
পুলিশসূত্রে জানা যায়, আজ সকালে এলাকাবাসী মরদেহটি পড়ে থাকতে দেখে। পরে তারা বিষয়টি বন্দর থানা পুলিশে সংবাদ দেয়। খবর পেয়ে মদনগঞ্জ ফাঁড়ি পুলিশ দ্রুত ঘটনাস্থলে এসে মৃতদেহটি উদ্ধার করে।
নিহত মিশুক চালকের বাবা আলম বাদশা বলেন, গত ৬ ডিসেম্বর বিকেল ৫টায় তার ছেলে মিশুক গাড়ি নিয়ে বের হয়। পরে সে বাড়িতে ফিরে না আসলে বিভিন্ন স্থানে অনেক খোঁজাখুঁজি করি। ওইদিন থেকেই তার ব্যবহারকৃত মোবাইল ফোনও বন্ধ ছিল। আজ আমার ছেলের মরদেহ খুঁজে পাই। আমার ছেলেকে মেরে ফেলা হয়েছে। আমার নিরীহ ছেলেকে কে বা কারা হত্যা করেছে তা তদন্তের দাবি জানাচ্ছি। আমি আমার ছেলে হত্যার বিচার চাই।
বন্দর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) গোলাম মোস্তফা জানান, মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নারায়ণগঞ্জ মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্তের পর মৃত্যুর প্রকৃত কারণ বলা সম্ভব হবে। তবে ধারণা করা হচ্ছে, মরদেহটি কয়েকদিন আগের হবে। এ ঘটনায় বন্দর থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলে জানান তিনি।